top of page

জীবনের গল্প


যখন আমি ছোট ছিলাম,

শুধু ভাবতাম মনে মনে,

কবে হবে বড় মানুষ,

নামবো জীবন রণে...

ভাল্লাগেনা পড়াশুনো,ভাল্লাগেনা শাসন,

তোমরা কই পড়তে বসো?

আমি উঠলেই বারণ?



আরেকটু যখন বড় হলাম,

স্টাইল এলো দেহে,

মনে হলো এই তো জীবন,

প্রাণ উঠতো গেয়ে...

নতুন সঙ্গী, নতুন স্বপ্ন,নতুন অভিজ্ঞতা,

কত নতুন বন্ধু বান্ধব,

নতুন প্রেমে হৃদয় গাঁথা...


পরের পর্যায় , ধাক্কা খাওয়া,

সে প্রেম হোক বা বেকারত্বের জ্বালা...

ভবঘুরে,সঙ্গী ছাড়া।।

একটা চাকরি জোগাড় হয়নি বলে,

প্রেমিকা ও গেল অন্যের ঘরে...

এখন আমি বড়োই এক..

ভাবি, ভালো কি কিছু নেই জীবনে??



এই যে আমি সংসারী ভাই,

মাথায় আমার অনেক চাপ..

ছেলে মেয়ে স্ত্রী কে নিয়ে,

টালমাটাল জীবন পাক।।

নিজের সুখ,নিজের শখ,নিজের মনের বাসনা,

কবে যে কথা হারিয়ে গেল,

এখন জন্মদিন টাও মনে থাকেনা।

ছেলের পড়া,মেয়ের বিয়ে,স্ত্রী এর নতুন আবদার,

বাবা-মা টাও হটাৎ কেমন বদলে গেছে এবার।

অফিস -বাড়ি-বাজার-রেশন

করেই দিন কাটে..

চোখের উপর মোটা চশমা,

রোগ ধরেছে শরীর-বুকে।।


অফুরন্ত সময় মাঝে আমার অবসর যাপন,

দোতলার এই কোনের ঘরে,বিছানায় শুয়ে দিন কাটানোর পন..

ছেলে এখন সংসারী তার মাথায় ভীষণ চাপ।

সারা দিনেও মনে পড়েনা,

কেমন আছে তার বাপ।

পিচুটি কাটা ক্ষীণ চোখে ,

জেগেই স্বপ্ন দেখি,

আবার হয়েছি ছোট্ট আমি,

করছি ছোটা-ছুটি।

মা ছুটছে পিছন পিছন,

খাবার থালা নিয়ে,

"সোনা আমার খেয়ে নে এবার..

বাঘ আসবে..."বলে.....


হটাৎ একদিন চোখের সামনে সব দেখি অন্ধকার...

শুনতে পাচ্ছি ছেলে বলছে,

"বাবা যে নেই আর"

আমার আড়ষ্ট শরীর মুখ,

হৃদ-যন্ত্র বন্ধ...

মেয়ে আমার কাঁদছে পাশেই,

ঘরটা ভরে ধূপের গন্ধ...



এমন করেই জীবন আমার গল্পের মতো কাটলো...

সবাই আমরা চরিত্র মশাই...

গল্প কারের কলম বদ্ধ....


125 views0 comments

Commentaires


bottom of page